ঈদের দিনে প্রায় শতাধিক মোটরসাইকেল আটক, কিশোরদের সচেতন হওয়ার আহবান

বগুড়ার শেরপুরে সড়ক দুর্ঘটনা রোধে ঈদের দিনে শেরপুর থানা, ট্রাফিক ও পুলিশ ফাঁড়ির বিশেষ অভিযানে বৃহস্পতিবার দুপুরে ধুনটমোড় এলাকায় প্রায় শতাধিক মোটরসাইকেল আটক করে প্রায় ৩ ঘন্টা পর ছেড়ে দেওয়া হয়। 
যানা যায়, ঈদের দিন কিশোররা মোটরসাইকেল নিয়ে সহাসড়ক সহ আঞ্চলিক সড়কগুলোতে দ্রুত গতীতে চালানোর কারণে সড়ক দুর্ঘটনা ঘটে থাকে।  সড়ক দুর্ঘটনা রোধে শেরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ রেজাউল করিম রেজার নেতৃত্বে শেরপুর থানা, ট্রাফিক ও পুলিশ ফাঁড়ির  একটি বিশেষ অভিযানে পরিচালনা করেন। এ সময় ১৮ বছরের নিচে কিশোররা একটি মোটরসাইলে ৩জন-৪ জন করে দ্রুতগতীতে চালিয়ে যাচ্ছে তাদের আটক করে। এবং সড়কে অনাকাক্সিক্ষত দুর্ঘটনা এড়াতে সকলকে সচেতন হওয়ার আহবান জানান তারা।  পরে সন্ধার কিছু আগে বাড়িতে ফেরার জন্য  তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন- শেরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ রেজাউল করিম, পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) কামাল হোসেনসহ ফোর্স, পুলিশ ফাঁড়ির এটিএসআই হেলাল, এএসআই হামিদুল ইসলাম, ট্রাফিক ফাঁড়ির- আনিছ প্রমুখ।

এ সময় শেরপুর থানা অফিসার ইনচার্জ রেজাউল করিম বলেন, “একটি দুর্ঘটনা সারাজীবনের কান্না- এ কথাটি আমাদের সবারই জানা। কিন্তু কার্যক্ষেত্রে গিয়ে আমারা অনেকেই তা মানি না। “ তাই আটককৃতদের তিনি সড়কে অনাকাক্সিক্ষত দুর্ঘটনা এড়াতে সকলকে সচেতন হওয়ার আহবান জানান।

উল্লেখ্য, প্রতিবছর ঈদের দিনে মোটরসাইকেল সড়ক দুর্ঘটনা ঘটলেও এবার ঈদে পৌনে ৮টায় এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত কোন সড়ক দুর্ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি।
বিজ্ঞাপন