শিক্ষার্থীদের অনুদানের অনলাইনে আবেদনের সময়সীমা আবারও বাড়লো

৪৫

শিক্ষার্থীদের অনুদানের জন্য আবেদনের তারিখ ১৫ মার্চ পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে। রোববার শিক্ষা মন্ত্রনালয়ের সিনিয়র সহকারী সচিব মো. ফজলুর রহমান স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ খবর জানানো হয়। এতে বলা হয়, কোভিড-১৯ পরিস্থিতি বিবেচনায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান, শিক্ষক ও কর্মচারী, , শিক্ষার্থীদের বিশেষ অনুদান প্রদানের লক্ষ্যে অনলাইনে আবেদনের সময়সীমা ১৫ মার্চ পর্যন্ত বাড়ানো হয়। এর আগে গত ১৮ জানুয়ারিতে একটি বিজ্ঞপ্তিতে মাউশির বাজেট শাখা থেকে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, শিক্ষক-কর্মচারী ও ছাত্র-ছাত্রীদের অনুদান প্রদানের জন্য সিনিয়র সহকারী সচিব মো. ফজলুর রহমান স্বাক্ষরিত একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশিত হয়। ওই বিজ্ঞপ্তিতে কত টাকার অনুদান দেওয়া হবে তা উল্লেখ নেই। শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাউশির ওয়েবসাইটে আবেদন ফরম অপশনে ক্লিক করে আবেদন করতে বলা হয়েছে।

ওই বিজ্ঞপ্তিতে সবার জন্য সরকারি অনুদান দেওয়ার কথা বলা নেই। বলা আছে, শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের মেরামত ও সংস্কার, আসবাবপত্র ক্রয়সহ অন্যান্য উন্নয়ন কাজের জন্য, শিক্ষক-কর্মচারীরা তাদের দূরারোগ্য ব্যাধি ও দৈব দুর্ঘটনার সহায়তার জন্য এবং শিক্ষার্থী যারা দূরারোগ্য ব্যাধি, দৈব দুর্ঘটনা এবং শিক্ষাগ্রহণ কাজে ব্যয়ের জন্য আবেদন করতে পারবে। তবে শিক্ষার্থীদের এ বিশেষ অনুদান দেওয়ার ক্ষেত্রে দুঃস্থ, প্রতিবন্ধী, অসহায়, রোগগ্রস্ত, গরিব, মেধাবী, অনগ্রসর সম্প্রদায়ের শিক্ষার্থীদের অগ্রাধিকার দেওয়ার নির্দেশনা রয়েছে। সেই নির্দেশনার সময়সীমা ছিল ২৮ ফেব্রুয়ারি। পরবর্তীতে তা বৃদ্ধি করে ৭ মার্চ করা হয়। সেই সময়সীমাও আজকে বাড়িয়ে ১৫ মার্চ পর্যন্ত করা হয়েছে।

এর আগে রোববার শেষ তারিখ হওয়া স্কুল কলেজগুলোয় শিক্ষার্থীদের উপচে পড়া ভিড় দেখা যায়। এই অনুদানের নির্দেশনা নিয়ে গুজব ছড়ায় প্রত্যেক শিক্ষার্থীকে ১০ হাজার করে টাকা দেয়া হবে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে এমন ভুল তথ্য ছড়িয়ে পড়ার পর শিক্ষার্থীসহ অভিভাবকরা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে প্রত্যয়ন নেয়ার জন্য হুমড়ি খেয়ে পড়ে।

অনুদান প্রাপ্তির বিষয়ে বগুড়া জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা হযরত আলী বলেন, এই অনুদান পিছিয়ে পড়া বা অনগ্রসর, প্রতিবন্ধী, দৈব দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত শিক্ষার্থীরা পাবে। তারা আবেদন করলে সেটিকে আবার যাচাইবাছাই করে তারপর মন্ত্রনালয় অনুদান দিবে।
বগুড়া অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (শিক্ষা ও আইসিটি) মাসুম আলী বেগ বলেন, শিক্ষা মন্ত্রনালয় অনুদান দেয়ার বিষয়ে বিজ্ঞপ্তি দিয়েছিল। রোববার শেষ তারিখ ঘোষণা করার কারনে শিক্ষার্থীদের ভিড় বেড়েছিল। তবে এই অনুদান সবাইকে দেয়া হবে না। অনেক শিক্ষার্থী ও অভিভাবক ভুল বুঝেছেন।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.