বগুড়ায় সাধারণ কাউন্সিলর পদে পুরুষ প্রতিদ্বন্দ্বীদের সাথে লড়ছেন দুই নারী

আব্দুল ওয়াদুদ : 
বগুড়ায় সংরক্ষিত কাউন্সিলর নয়, সাধারণ কাউন্সিলর পদে পুরুষ প্রতিদ্বন্দ্বীদের সাথে ভোটের মাঠে লড়ছেন দুই নারী। নির্বাচনে জয় নিশ্চিত করতে ভোটারদের বাড়ি বাড়ি ছুটছেন তারা।  তারা জানান, সীমাবদ্ধ বা সংরক্ষিত নয়, নারী-পুরুষের সমান অধিকার জানান দিতেই তাদের এই লড়াই। কর্মী-সমর্থকদের নিয়ে গণসংযোগ করছেন জাকিয়া সুলতানা আলেয়া এবং অনন্যা রহমান বুলা। বগুড়া পৌরসভার ২১টি ওয়ার্ডেই নারী প্রার্থীদের এমন গণসংযোগের দেখা মিলছে।  তবে, আলেয়া ও বুলার লড়াইটা একেবারেই ভিন্ন।  অন্য সবাই সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে লড়লেও তারা সাধারণ কাউন্সিলর পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন ১১জন পুরুষ প্রার্থীর বিরুদ্ধে। এছাড়া তিনটি ওয়ার্ড মিলিয়ে একজন মাত্র নারী প্রতিনিধিত্ব করায় সম-অধিকার নিশ্চিত হয় না বলেও অভিমত।

১২ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী জাকিয়া সুলতানা আলেয়া বলেন, ‘পুরুষদের পাশাপাশি আমিও সমন্নয় চলতে পারি এইটুকু প্রমান করার জন্যই যে প্রত্যেটা নারীর অংশবিশেষ হিসেবে নারী উন্নয়নে অংশ নিতে আমার এই সিদ্ধান্ত।’
৫ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর প্রার্থী অনন্যা রহমান বুলা বলেন, ‘সংরক্ষিত কাউন্সিলর প্রার্থী হিসেবে নির্বাচন করতে আমার ভালো লাগেনি। নারীরা যদি ক্ষমতায় আসে তাহলে নারীর উন্নয়নটা বেশি হবে। সেই সাথে নারীরা প্রাপ্য মর্যদাটুকু পাবে।’
নারী ভোটাররা বলছেন, আলেয়া এবং বুলার এই লড়াই মেয়েদের জন্য অনুপ্রেরণা। নারীদের এই অংশগ্রহণকে স্বাগত জানিয়েছেন পুরুষ ভোটাররাও। নারী-পুরুষের সমঅধিকার প্রতিষ্ঠায় নির্বাচনে ‘সংরক্ষিত পদ’ বাতিল হওয়া প্রয়োজন বলে মনে করে নারী সংগঠনগুলো।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.