আদমদীঘিতে গোপনে বাল্যবিয়ে দিয়েও রেহায় পেলেন না বর কনের পরিবার

৯৮

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার আদমদীঘিতে গোপনে রিভা আক্তার (১৪) নামের ৮ম শ্রেনির এক মাদরাসা ছাত্রীকে বাল্যবিয়ে দিয়েও রেহায় পেলেন না বর ও কনের পরিবার। প্রশাসন এক অভিযান চালিয়ে বর দেলোয়ারের বাবা আব্দুল মান্নানের ৫ হাজার ও কনের বাবা আনোয়ার হোসেনের ৫ হাজার টাকা করে মোট ১০ হাজার জরিমানা করেছেন ভ্রাম্যমান আদালতের নির্বাহি ম্যাজিষ্ট্রেট সীমা শারমিন। গতকাল ২১ ফ্রেবুয়ারী রোববার বিকেলে এই জরিমানা করা হয়।

জানা যায়, আদমদীঘি সদর ইউনিয়নের রামপুরা গ্রামের আনোয়ার হোসেনের মেয়ে ৮ম শ্রেনির মাদরাসা ছাত্রী রিভা আক্তার (১৪)কে গত ২০ ফেব্রুয়ারী শনিবার রাত ১টায় গোপনে একই গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে দেলোয়ার হোসেনের সাথে ৬০ হাজার টাকা দেনমোহর ধার্যে বাল্যবিয়ে দেন। এ বিয়ের মৌলভি ছিলেন আব্দুল জোব্বার নামের এক ব্যক্তি। এদিকে সরকারি আইন উপেক্ষা করে গোপনে বাল্যবিয়ে দেয়ার সংবাদ পেয়ে গত রোববার দুপুরে আদমদীঘি উপজেলা নির্বাহি অফিসার ও নির্বাহি ম্যাজিষ্ট্রেট সীমা শারমিন ফোর্সসহ রামপুরা গ্রামে অভিযান চালিয়ে কনে রিভা আক্তার ও তার মা ফাহিমা বেগমকে আটক করে। এসময় বর দেলোয়ার হোসেন পালিয়ে যায়। পরে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে বরের বাবার ৫ হাজার টাকা ও কনের বাবার ৫ হাজার টাকা করে মোট ১০ হাজার টাকা জরিমানা করে তাদের মুচলেকা নিয়ে ছেড়ে দেয়া হয়।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.