শেরপুরের বাবার নির্যাতন সইতে না পেরে গলায় ফাঁস দিয়ে যুবতীর আত্মহত্যা

৮৬

বিজয় বাংলা বিডি :
বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় খানপুর ইউনিয়নে বাবার নির্যাতন সইতে না পেরে নিজ ঘরে গলায় দড়ি দিয়ে কুমারী সম্পা বালা (১৪) নামের এক যুবতীর আত্মহত্যা করেছে। নিহত কুমারী সম্পা বালা চকখানপুর দওপাড়া হিন্দু পাড়া গ্রামের দীনেশ চন্দ্র গায়েনের মেয়ে। বৃহস্পতিবার (১৪ জানুয়ারি) সকাল ১০টায় লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল প্রেরণ করে। বুধবার দিবাগত রাত্রিতে নিজ ঘরে ফিরে সঙ্গে দড়ি দিয়ে আত্মহত্যা করে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, গত ৭দিন পূর্বে সম্পা বালার বিয়ে ঠিক হয়ে যায় কিন্তু পারিবারিক কলহের জন্য বিয়ে ভেঙ্গে যায়। গত দেড় মাস আগে সম্পা বালা বাবর নির্যাতন সয়তে না পেরে বিষপান করে আত্মহত্যার চেষ্টা করে । শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়ে সুস্থ হয়ে বাড়িতে ফিরে আসে। বুধবার ১৩ জানুয়ারি রাতে নির্জন ঘরে গলায় দড়ি দিয়ে তীরে সঙ্গে ঝুলিয়ে আত্মহত্যা করে। এ বিষয়ে শেরপুর থানার এসআই আব্দুস সালাম জানান, লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানোর প্রস্তুতি চলছে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.