আদমদীঘিতে ফুটবল খেলা নিয়ে সংঘর্ষে- দুই জনকে ছুরিকাঘাত

১৭৭

আদমদীঘি (বগুড়া) প্রতিনিধি : বগুড়ার আদমদীঘিতে ফুটবল খেলা নিয়ে পরিচালকের বির্তকিত সিদ্ধান্তে এক রক্তক্ষয়ি সংর্ঘষে অন্তত ৮জন আহত হয়েছে। এদের মধ্যে ছুরিকাঘাতে আহত দর্শক দুই যুবকের অবস্থা গুরুত্বর। এরা হলেন- আদমদীঘির বিহিগ্রামের রাশেদুল ইসলাম (২৪) ও আসাদুজ্জামান (৩১)। গত ৬ জানুয়ারী বুধবার বিকেলে আদমদীঘির চাঁপাপুর ইউনিয়নের বাহাদুরপুর গ্রামের একটি মাঠে ফুবল খেলার সময় এ ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে আদমদীঘি থানায় রাতেই ৭জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

জানা যায়, আদমদীঘির চাঁপাপুর ইউনিয়নের বাহাদুরপুর গ্রামের একটি মাঠে এলাকার কতিপয় ব্যক্তি ফুটবল খেলার আয়োজন করেন। গত বুধবার বিকেলে ওই মাঠে পালংকুড়ি একাদশ ও বিহিগ্রাম একাদশের মধ্যে সেমিফাইনাল ফুটবল খেলা শুরু হয় বিকেল ৪টায়। খেলার চলাকালে পরিচালক (রেফারি) আরিফুল ইসলাম একটি গোল হওয়াকে ভুল সিদ্ধান্ত দেয় এমন অভিযোগ করে বিহিগ্রাম একাদশ দলের খেলোয়ারদের সাথে রেফারির বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে কমিটির কতিপয় সদস্যদের সাথে সংঘর্ষ বাধে। সংঘর্ষে অন্তত ৮জন আহত হয়। পরে মামলার আসামী মিলন, রকি, রানাসহ বেশ কিছু বহিরাগত যুবক বিহিগ্রামের ফুটবল দর্শক হিসাবে দন্ডায়মান রাশেদুল ইসলাম ও আসাদুজ্জামান মিলনকে ছুরিকাঘাত করে পালিয়ে যায়। পরে স্থানীয়রা গুরুত্বর আহত দুইজনকে উদ্ধার করে আদমদীঘি হাসপাতালে নিয়ে আসা হয়। এদের মধ্যে রাশেদুলকে ভর্তি করা হয়েছে। আদমদীঘি থানার ওসি জালাল উদ্দীন মামলা বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.