1. zahersherpur@gmail.com : abu zaher Zaher : abu zaher Zaher
  2. Bijoybangla2008@gmail.com : bijoybangla :
  3. harezalbaki@gmail.com : Harez :
  4. mannansherpur81@gmail.com : mannan :
  5. wadut88@gmail.com : wadut :
ডেঙ্গু ডেডিকেটেড হাসপাতালে কার্যক্রম নেই, জানে না স্বাস্থ্য অধিদফতর! - বিজয় বাংলা
রবিবার, ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০২:৪৫ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
ফুলবাড়ীতে সড়ক দূর্ঘটনায় কাস্টম ইন্সেপেক্টর নিহত মায়ের ওপর অভিমান করে অষ্টম শ্রেণির ছাত্রের আত্মহত্যা নারিকেল দুধে চিকেন কারি বোচামের জালে বায়ার্নের সাত গোল কারিনার মতো দেখায় টাইগারকে, যা বললেন জ্যাকি স্থগিত ৪০তম বিসিএসের মৌখিক পরীক্ষা আজ থেকে চার ঘণ্টা সিএনজি ফিলিং স্টেশন বন্ধ যুক্তরাষ্ট্রে ৬৫ ঊর্ধ্বদের বুস্টার ডোজ টিসিবির ট্রাকে পেঁয়াজ মিলবে ৩০ টাকায় বান্দরবানে পর্যটকবাহী গাড়িতে সন্ত্রাসীদের গুলি, আহত ৫ কমিশনার অব প্রিজন আহমেদ ফুলহুর সাথে রাষ্ট্রদূতের সৌজন্য সাক্ষাৎ সাবেক স্বাস্থ্যমন্ত্রী প্রয়াত মোহাম্মদ নাসিমের কবর জিয়ারত শাজাহানপুরে বাসের ধাক্কায় সেনা সদস্য নিহত শেরপুুরে ফুটবল খেলোকে কেন্দ্র করে মারপিট আহত-৪ শেরপুরে ভাতিজিকে উত্যক্তের প্রতিবাদ করায় ছুরিকাঘাতে মৃত্যুর মুখে দুই চাচা সরকার পতন একদফা আন্দোলনের জন্য নেতাকর্মীদের প্রস্তুতি নেওয়ার আহবান-সাবেক এমপি লালুর কুষ্টিয়ায় কুখ্যাত মাদক সম্রাট শাহিন  আটক বাগেরহাটে ইউপি নির্বাচনে সহিংসতার আশঙ্কায় ভোটাররা তানোরে গৃহবধূকে উত্যাক্তের প্রতিবাদ করায় স্বামী শ্বশুড়ীকে মারধর এহসান গ্রুপের প্রতারকরা ধর্মব্যবসায়ী : মোমিন মেহেদী

ডেঙ্গু ডেডিকেটেড হাসপাতালে কার্যক্রম নেই, জানে না স্বাস্থ্য অধিদফতর!

  • সর্বশেষ সংস্করণ : বৃহস্পতিবার, ২ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ৩৭ বার দেখা হয়েছে

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ কমলেও বেড়েই চলছে এডিস মশাবাহিত রোগ ডেঙ্গুর প্রকোপ। গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশের বিভিন্ন হাসপাতালে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে নতুন ২৯৫ জন ভর্তি হয়েছেন। এ নিয়ে বর্তমানে দেশের বিভিন্ন সরকারি ও বেসরকারি হাসপাতালে সর্বমোট ভর্তি থাকা রোগীর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে এক হাজার ১৫৬ জনে।
গত ২৩ আগস্ট ডেঙ্গুর প্রকোপ বৃদ্ধির কারণে রাজধানীর ছয়টি হাসপাতালকে ডেঙ্গু ডেডিকেটেড ঘোষণা দিয়েছে স্বাস্থ্য অধিদফতর (ডিজিএইচএস)। হাসপাতালগুলো হলো, স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল, টঙ্গীর শহীদ আহসান উল্লাহ মাস্টার জেনারেল হাসপাতাল, কমলাপুরে রেলওয়ে জেনারেল হাসপাতাল, ২০ শয্যা আমিনবাজার সরকারি হাসপাতাল, মিরপুরের লালকুঠি হাসপাতাল ও ৩১ শয্যা কামরাঙ্গীরচর হাসপাতাল।
এর মধ্যে মতিঝিল রেলওয়ে জেনারেল হাসপাতাল ও মিরপুরের লালকুঠি মা ও শিশু হাসপাতাল দুটি ঘুরে দেখা যায়, এসব হাসপাতালে কোন ধরণের ডেঙ্গু রোগী ভর্তি করানো হচ্ছে না। মতিঝিল রেলওয়ে হাসপাতালে শুধু রেল কর্মকর্তা বা কর্মচারীদের চিকিৎসা দেওয়া হলেও সাধারণ ডেঙ্গু রোগীদের অন্য হাসপাতালে রেফার করে দেওয়া হচ্ছে। এদিকে মিরপুর লালকুঠি মাতৃসদন হাসপাতালে জ্বরের রোগীদের জন্য হাসপাতালের নিচ তলায় ‘ফ্লু কর্নার’ চালু করে সেখানে রোগী দেখা হচ্ছে এবং সর্বোচ্চ হলে ডেঙ্গু টেস্ট করানো হচ্ছে। কিন্তু কোন ডেঙ্গু রোগী ভর্তি করানো হচ্ছে না।

Alal Group

লালকুঠি হাসপাতালে সোমবার সকালে গিয়ে দেখা যায়, অন্তত ১০ জন সম্ভাব্য ডেঙ্গু ও জ্বরের রোগী এসেছেন চিকিৎসা নিতে। কর্তব্যরত ডাক্তাররা তাদের চেক আপ করে প্রয়োজন অনুযায়ী টেস্ট করতে দিচ্ছেন এবং ওষুধ লিখে দিচ্ছেন।
লালকুঠি হাসপাতালের ডেঙ্গু চিকিৎসার কার্যক্রম সম্পর্কে জানতে চাইলে হাসপাতালটির পরিচালক শামছুল করিম বার্তা২৪.কম-কে বলেন, ডেঙ্গু চিকিৎসার জন্য এখানে নয় ও দশ তলায় ১০০ শয্যা প্রস্তুত আছে। তবে, চিকিৎসা দিতে হলে মেডিসিন কনসালটেন্ট, নার্স, টেকনিশিয়ানসহ প্রয়োজনীয় জনবল ও ওষুধ দরকার। যা আমাদের এখানে নেই। এ কারণে রোগী ভর্তি করে চিকিৎসা দেওয়া সম্ভব হচ্ছে না। জনবল চেয়ে ইতমধ্যে দুবার চিঠি দেওয়া হয়েছে। প্রয়োজনীয় লোকবল পাওয়া গেলে ১০০ শয্যার ডেঙ্গু ইউনিট চালু করা সম্ভব হবে।
কমলাপুর রেলওয়ে হাসপাতালের ঊর্ধ্বতন কোন কর্মকর্তা কথা বলতে রাজী না হলেও নাম প্রকাশ না করার শর্তে একজন কর্মকর্তা জানান, আমাদের হাসপাতাল যে ডেঙ্গুর জন্য ডেডিকেটেড করা হয়েছে সেটা আমরা মিডিয়ার মাধ্যমে জেনেছি। এখন পর্যন্ত এ বিষয়ক কোন দাফতরিক নির্দেশনা আমাদের কাছে এসে পৌঁছায়নি।
লালকুঠি হাসপাতালে ডেঙ্গু চিকিৎসার জন্য প্রয়োজনীয় জনবল নেই এবং রোগী ভর্তি নেওয়া হচ্ছে না। লালকুঠি হাসপাতালের বিষয়টি ‘অবগত নন’ জানিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মুখপাত্র অধ্যাপক ডা. নাজমুল ইসলাম বলেন, লালকুঠি হাসপাতালটা তো ফ্যামিলি প্ল্যানিং এর অধীনে তাই কাগজপত্র না দেখে কিছু বলা যাবে না এখন। তবে তাদের নির্দেশনা দেওয়া আছে রোগী আসলে তাদের ভর্তি করে চিকিৎসা দেবে। এখন রোগী আসছে কী না সেটাই হলো বিষয়।
রোগী আসছে কিন্তু চিকিৎসক, নার্স ও ওষুদের ব্যবস্থা না থাকায় ভর্তি নেওয়া হচ্ছে না এমন বিষয়ে তিনি বলেন, এটা আপনার মাধ্যমে জানতে পারলাম। আমি খোঁজ নিয়ে আরো বিস্তারিত জানাব। তারা যদি এসব সমস্যার কথা আমাদের জানায় আমরা ব্যবস্থা নেব। এটা তো কোন সমস্যা না! রেলওয়ে হাসপাতালের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি আরো বলেন, রেলওয়ে হাসপাতাল তো সরকারি যদিও এটি মন্ত্রণালয়ের অধীনে চলে। তবুও আমি খোঁজ নেব বিস্তারিত জানব। তবে ডেঙ্গু রোগীর চিকিৎসা তো আলাদা কিছু না। এটার একটা প্রোটকল করা আছে। কোনটাতে কিভাবে চিকিৎসা করা হবে তা বলা আছে। একেবারে গাইডলাইন ধরে চিকিৎসা করালেই হয়। এর জন্য এমবিবিএস থেকে শুরু করে স্পেশালী সবাইকেই ডেঙ্গু চিকিৎসার ট্রেনিং করানো আছে। সে অনুযায়ী চিকিৎসা করালেই হয়। এরপরেও রেলওয়ে হাসপাতাল যদি না নেয় রোগী তাহলে এটা দেখতে হবে এবং সেটা আমরা সমাধান করে দেব। কিন্তু এখন পর্যন্ত আমাদের রেলওয়ে হাসপাতাল থেকে জানানো হয়নি তারা কেন রোগী ভর্তি নিচ্ছে না কিংবা কেন নিতে চাচ্ছে না। রেলওয়ে হাসপাতালকে ডেঙ্গু ডেডিকেটেড ঘোষণার কোন নির্দেশনা না পাওয়ার ব্যাপারে জানতে চাইলে স্বাস্থ্যের এই মুখপাত্র বলেন, এই নির্দেশনা তো স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় থেকেই দেওয়া হয়েছে কাজেই এটা না পৌঁছানোর কোন কারণ নাই। এদিকে ডেডিকেটেড হাসপাতালগুলোতে ডেঙ্গুর চিকিৎসা না হওয়ায় চাপ বাড়ছে মিটফোর্ড হাসপাতালে।এই হাসপাতালে ডেঙ্গু ইউনিটে শয্যা আছে ৮০টি। বর্তমানে হাসপাতালটিরে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে চিকিৎসা নিচ্ছে প্রায় ২৫০ জনের মতো। যে কারণে অনেককেই হাসপাতালটির মেঝে ও বারান্দায় থেকে চিকিৎসা নিতে হচ্ছে। এমন পরিস্থিতি সামাল দিতে হিমশিম খেতে হচ্ছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষকে

Alal Group

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ বিজয় বাংলা
Theme Download From ThemesBazar.Com
RSS
Follow by Email