1. zahersherpur@gmail.com : abu zaher Zaher : abu zaher Zaher
  2. Bijoybangla2008@gmail.com : bijoybangla :
  3. harezalbaki@gmail.com : Harez :
  4. mannansherpur81@gmail.com : mannan :
  5. wadut88@gmail.com : wadut :
লাব্বাইক ধ্বনিতে মুখরিত আরাফাত ময়দান - বিজয় বাংলা
শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০৯:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনামঃ
কুড়িগ্রামে শিশু শিক্ষার্থী মিষ্টিকে বাচাঁতে বাবা ও মায়ের সাহায্যের আবেদন রাতের আঁধারে অসহায়ের মানুষের পাশ্বে মোহাম্মদ নাসিম স্মৃতি সংসদ কাজিপুর বোনকে ধর্ষনের চেষ্টা, লম্পট ভাই গ্রেফতার সুবর্ণচরে যৌতুকের দাবিতে গৃহবধূকে বেঁধে নির্যাতনের অভিযোগ দেওয়ানগঞ্জে কঠোর ভাবে লকডাউন বাস্তবায়ন করছে উপজেলা প্রশাসন শিবগঞ্জে কুরবানী ঈদে ১২টি গরু বিক্রির টাকা চুরির ঘটনায় আটক ১ জাপান থেকে ঢাকায় পৌঁছেছে অ্যাস্ট্রাজেনেকার ২ লাখ ৪৫ হাজার টিকা বন্দুকের নল থুতনিতে লাগিয়ে সেলফি, উড়ে গেলো মাথা-মগজ বাগেরহাটে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতির সুস্থ্যতা কামনায় দোয়া অনুষ্ঠিত বগুড়ায় সাড়ে ৩০ কেজি ওজনের বিষ্ণুমূর্তিসহ গ্রেফতার ১ দেশে হঠাৎ বেড়েছে করোনার সংক্রমণ, মৃত্যু ১৯ হাজার ছাড়ালো ৭২ ঘণ্টার মধ্যেই বৃষ্টিতে নাকাল হবে দেশ শেরপুরে অভিনব কায়দায় ট্রাক ছিনতাই ৫০ হাজার শিক্ষক নিয়োগে নতুন গণবিজ্ঞপ্তি আসছে বগুড়ার সারিয়াকান্দি পরিচয়বিহীন তরুণী উদ্ধার কয়রায় মুজিব বর্ষের ২৫ টি আশ্রয় কেন্দ্রে নারিকেলের চারা বিতরণ শেরপুরে স্বাস্থ্যবিধি ও সরকারি নির্দেশনা অমান্য করায় জরিমানা শেরপুরে প্রধানমন্ত্রীর উপহার আশ্রয়ণ প্রকল্প স্বপ্নের ঠিকানায় খুশির কোরবানির ঈদ বগুড়ায় করোনায় আক্রান্ত ও উপসর্গে মৃত্যু ২৪ মেধাবীদের মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী হওয়ার আহবান – এমপি বাবু

লাব্বাইক ধ্বনিতে মুখরিত আরাফাত ময়দান

  • সর্বশেষ সংস্করণ : সোমবার, ১৯ জুলাই, ২০২১
  • ৩৬ বার দেখা হয়েছে

৬০ হাজার ধর্মপ্রাণ মুসলমান পাপমুক্তি ও আত্মশুদ্ধির আকুল বাসনা নিয়ে আজ সোমবার (১৯ জুলাই) পবিত্র হজ পালন করছেন। সৌদিতে অবস্থানরত অভিবাসী বিশ্বের ১৫০টি দেশের হাজিরা আজ আরাফাতের ময়দানে সমবেত হয়েছেন। আজ সূর্যোদয়ের পর ৬০ হাজার হাজি মিনা থেকে রওনা হন আরাফাতের ময়দানের দিকে। ট্রেনে, এবং বাসে হাজিরা আরাফাতের ময়দানে হাজির হন। হাজারো কণ্ঠে ছিল একটিই ধ্বনি, ‘লাব্বাইক আল্লাহুম্মা লাব্বাইক, লাব্বাইকা লা শারিকা লাকা লাব্বাইক, ইন্নাল হাম্‌দা ওয়ান নি’মাতা লাকা ওয়াল মুল্‌ক, লা শারিকা লাক।’
এই আরাফাত ময়দানে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) বিদায় হজে মুসলিম জাতির উদ্দেশে নির্দেশনামূলক ভাষণ দিয়েছিলেন। এছাড়া মুসলমানদের আদি পিতা হযরত আদম (আ.) এবং মা হাওয়ার স্মৃতি বিজড়িত মিলনস্থলও এই আরাফাত ময়দান।

Alal Group

হযরত মুহাম্মদ (সা.) বলেছিলেন, আরাফাত ময়দানে অবস্থান মানে হজ। যে মুসলমান মুজদালিফায় রাত্রিযাপন করে ফজরের নামাযের পূর্বে আরাফাতের ময়দানে পৌঁছাবে তার হজ পূর্ণ হয়ে যাবে।
আরাফাত ময়দানে মসজিদে নামিরা থেকে হজের খুতবা পাঠ করবেন কাবা শরীফের ইমাম ও খতিব শায়খ ড. বান্দার বালিলাহ। বাংলা ভাষাসহ ১০টি ভাষায় হজের খুতবা অনুবাদ করে প্রচার করা হবে। প্রথমবারের মতো খুতবা বাংলা অনুবাদ করবেন মক্কা ইসলামিক সেন্টারের কর্মরত বাংলাদেশের কক্সবাজার জেলার মাওলানা আ.ফ.ম ওয়াহিদুর রহমান।
বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের কারণে সৌদি সরকার দ্বিতীয়বারের মতো স্বল্প পরিসরে হজ পালন অনুষ্ঠান করতে যাচ্ছে। গতবছর ১০হাজার হজ্বযাত্রী দিয়ে হজ্ব সম্পাদন হলেও এ বছর ৬০ হাজার হজযাত্রীকে লটারির মাধ্যমে হজ পালন করার সুযোগ করে দিয়েছেন সৌদি সরকার, সেজন্য নেয়া হয়েছে তিন স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

Alal Group

হজ সংশ্লিষ্ট এলাকাগুলোতে হজের সাথে সংশ্লিষ্ট ছাড়া কাউকে প্রবেশ করতে দেয়া হচ্ছে না। অবৈধভাবে হজ পালন রোধে নেয়া হয়েছে সব ধরনের ব্যবস্থা। সংশ্লিষ্ট এলাকাগুলোর প্রবেশদ্বারে বসানো হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা। আগ থেকেই অনুমতি ছাড়া হজ্ব পালন না করার জন্য সতর্ক করে দিয়েছে সরকার।
আজ সকালে মিনা থেকে ৩ হাজার বাসের করে হজযাত্রীকে আরাফার ময়দানে সুশৃংখলভাবে পৌঁছানো হয়েছে। কোনো ধরনের দুর্ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। হজ্বযাত্রীরা আরাফার ময়দানে সূর্যাস্ত পর্যন্ত অবস্থান করে আল্লাহর কাছে মোনাজাতের মাধ্যমে জীবনের সব গুনাহ ক্ষমা করার জন্য প্রার্থনা করবেন।
হাজিরা মসজিদে নামিরা থেকে প্রদত্ত হজের খুতবা শ্রবণ, যোহর আসরের এক আজানের দুই ইকামতে কসরের সাথে আদায় করবেন। তাবুতে অবস্থানকারি হাজিরা সেখানেই নামাজ আদায় করবেন।
আরাফাত ময়দান থেকে সূর্য অস্ত যাবার পর হাজীগণ রওনা দিবেন মুজদালিফার উদ্দেশে। মুজদালিফায় পৌঁছে হাজীরা মাগরিব ও এশা একসাথে আদায় করে মুজদালিফার খোলা ময়দানে রাত্রি যাপন করবেন। শয়তানকে নিক্ষেপ করার জন্য সৌদি সরকার পক্ষ থেকে জীবাণুমুক্ত কংকর প্রত্যেক হজযাত্রীকে সরবরাহ করা হবে। এজন্য হাজীদেরকে নিজ উদ্যোগে মুজদালিফা ময়দান থেকে কংকর সংগ্রহ করতে হবে না। ময়দান থেকে আগামীকাল ফজরের নামাজ পড়ে সূর্যোদয়ের পর মিনা পৌঁছে হাজিগণ প্রথম দিন বড় জামারায় সাতটি কংকর নিক্ষেপ করবেন, পাশাপাশি পশু কোরবানি দিয়ে মাথা মুণ্ডন করে ঈদ আনন্দে মেতে উঠবেন।

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই বিভাগের আরও খবর
© সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ বিজয় বাংলা
Theme Download From ThemesBazar.Com
RSS
Follow by Email