1. zahersherpur@gmail.com : abu zaher Zaher : abu zaher Zaher
  2. Bijoybangla2008@gmail.com : bijoybangla :
  3. harezalbaki@gmail.com : Harez :
  4. mannansherpur81@gmail.com : mannan :
  5. wadut88@gmail.com : wadut :
দাম বেড়েছে আদা-রসুনের, স্থিতিশীল মসলার বাজার - বিজয় বাংলা
রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৬:৪৯ পূর্বাহ্ন
শিরোনামঃ
শেরপুরে বিপুল পরিমান গাঁজাসহ গ্রেপ্তার ২ চার বিভাগে বৃষ্টির আভাস বগুড়ার অভিযানে চার ব্যবসায়ীর জরিমানা শেরপুরে দায়ের কোপে আহত মিজানুর রহমান শেরপুরে অসুস্থ মাকে দেখতে গিয়ে, নিজেই লাশহয়ে ফিরলের বাড়ীতে নিখোঁজের দু’বছর পর এক তরুণের বস্তাবন্দী মরদেহ উদ্ধার আদমদীঘিতে পোনা মাছ অবমুক্ত আদমদীঘিতে ইউএনও‘র বিদায়ী সংবর্ধনা আদমদীঘিতে প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার-১ নবীনগরে সামাজিক সম্প্রীতি সমাবেশ শেরপুরে ভাদড়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের মূল ফটকের উদ্বোধন শেরপুর উপজেলার শ্রেষ্ঠ বিদ্যোৎ সাহী সমাজকর্মী খোকন শেরপুরে নিখোঁজে ৩দিন হলেও সন্ধান মেলেনি উজ্জলের নারায়ণগঞ্জে সাবেক ছাত্রলীগ কর্মীকে কুপিয়ে হত্যা মইন খানের সমালোচনার জবাব দিলেন রিজওয়ান টাঙ্গাইলে জিনের বাদশা জাহাঙ্গীর আটক সিরাজগঞ্জে ১৩০ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট’সহ ২ জন আটক মিডিয়া ফেলোশিপ অ্যাওয়ার্ড পেলেন সময়ের খবরের শোহান সিরাজগঞ্জে সোস্যাল ওয়ার্ক সেন্টারে আন্তর্জাতিক শান্তি দিবস পালিত বাগেরহাটে মামার ঘেরে মাছ চুরি, দেখে ফেলায় পাহারাদারকে হত্যা

দাম বেড়েছে আদা-রসুনের, স্থিতিশীল মসলার বাজার

  • সর্বশেষ সংস্করণ : শনিবার, ১৭ জুলাই, ২০২১
  • ১২৫ বার দেখা হয়েছে

ঘনিয়ে আসছে ঈদুল আজহা (কোরবানির ঈদ) ভিড় জমেছে গরু, ছাগলসহ মসলার বাজারে। তবে বিগত বছরের তুলনায় এবারের ঈদের বাজারে ব্যাতিক্রমী রুপ নিয়ে এসেছে করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব। সরকারের দেয়া লকডাউন আর সাধারণ মানুষের আয় কমে যাওয়ার প্রভাব পড়েছে মসলার বাজারেও। বাজারে আদা, রসুনের দাম বাড়লেও স্থিতিশীল রয়েছে মসলার বাজার। ব্যাবসায়ীরা কারণ‌ হিসেবে মনে করছে আগের তুলনায় ক্রেতাদের চাহিদা কমে যাওয়া।
শনিবার (১৭ জুলাই) রাজধানীর রায়েরবাগ ও যাত্রাবাড়ী এলাকার কয়েকটি বাজার ঘুরে এমনটি দেখা যায়।

Alal Group

বাজারে গিয়ে দেখা যায়, একই বাজারের দোকান ভেদে ভিন্ন দামে বিক্রি করছে আদা। কোথাও ২০০ টাকা কেজি, কোথাও ২২০ টাকা কেজি, আবার কোথাও একই আদা ২৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি হচ্ছে। যা গত দশ দিন আগে বিক্রি হয়েছে ১৫০- ১৭০ টাকা কেজি। আদার প্রতি কেজিতে দাম বেড়েছে ৩৫- ৪০ টাকা। এছাড়া দেশি রসুন বিক্রি হচ্ছে ৭০-৮০ টাকা কেজি দরে। ইন্ডিয়ান রসুন বিক্রি হচ্ছে ১৫০ টাকা কেজি। যা গত দশ দিন আগে বিক্রি হয়েছে দেশি রসুন ৬০ টাকা কেজি আর ইন্ডিয়ান রসুন ১৩০ টাকা কেজি। প্রতি কেজি রসুনে দাম বেড়েছে ২০ টাকা।
মসলার বাজার ঘুরে দেখা যায়, প্রায় সব ধরনের মসলার দাম গত দশ দিনের বাজার দর হিসেবে স্থিতিশীল রয়েছে। খুচরা বাজারে জিরা ৩৩০- ৩৪০ টাকা কেজি, শুকনা মরিচ ২০০ টাকা কেজি, সাদা এলাচ ২১০০ টাকা কেজি, কালো এলাচ ৭৫০ টাকা কেজি, সাগু দানা ২৫০০ টাকা কেজি, দারুচিনি ৩২০ টাকা কেজি, জয় ফল ১০ টাকা প্রতি পিছ, হলুদ ২২০-২৩০ টাকা কেজি এবং লবঙ্গ ১১০০ টাকা কেজি। যা গত দশ দিন ধরে একই দামে বিক্রি হচ্ছে।
রায়েরবাগ বাজারের ক্রেতা রুহুল আমিন বলেন, কোরবানির বাজার আজকে করলাম। আদার দামটা হঠাৎ করেই বেড়ে গেছে, এছাড়া সব কিছুরই দাম আগের মতোই আছে। ভেবেছিলাম হয়তো মসলার দাম বাড়বে কিন্তু এখন পর্যন্ত বাড়েনি।

Alal Group

যাত্রাবাড়ীর মসলা ব্যাবসায়ী ফজলুল হক বলেন, এখন পর্যন্ত যে মাল কিনছি কোনটার দাম বাড়েনি। কালকে আবার মোকামে যাব মালা কিনতে তখন কি হয় বলতে পারছিনা। এখন পর্যন্ত দাম মোটামুটি আগের মতোই আছে।
ৃমসলার পাইকারি ব্যাবসায়ী শামীম বলেন, প্রতি বছরই কোরবানির ঈদের সময় মসলার দাম বাড়ে কিন্তু এবার দাম বাড়ার লক্ষণ দেখছি না। লকডাউনের কারণে মানুষের হাতে পয়সা নাই। অনেকে ঈদ করতে ঢাকার বাইরে গেছে, এজন্য বাজারে কস্টমারের চাপ নাই। বিক্রিও কম তাই এবার কোন মসলার দাম বাড়েনি। আদা কাঁচা মাল এখন এক রকম দাম আছে আবার অন্য সময় আরেক রকম হবে এর ঠিক নাই। তবে মসলার বাজার স্থিতিশীল রয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই বিভাগের আরও খবর
© সর্বস্বত্ত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ বিজয় বাংলা
Theme Download From ThemesBazar.Com
RSS
Follow by Email