আটঘরিয়ায় ভাসুর কর্তৃক ধর্ষিত অত:পর বিষপানে আতœহত্যা ॥ ধর্ষক ভাসুর গ্রেপ্তার

১৪

আটঘরিয়া (পাবনা) প্রতিনিধি :
পাবনার আটঘরিয়ার কাকমারী বেরিবাধ গ্রামের স্বপন হোসেনের স্ত্রী রতœা খাতুন(২০)কে ভাসুর রঞ্জু কর্তৃক ধর্ষণ করে। এঘটনায় রতœা খাতুন সবার অজান্তে বিষপান করলে গত সোমবরা দিবাগত রাতে পাবনা সদর হাসপাতালে সে মারা যায়। এবিষয়ে আটঘরিয়া থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা হয়েছে। মামলা নং-০১।

পুলিশ ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলা মাজপাড়া ইউনিয়নের কাকমারী গ্রামের মৃত বেলাল হোসেনের ছেলে স্বপন এর সাথে বিয়ে হয় কুমার গাড়ী গ্রামের হানিফ হোসেনের মেয়ে রতœা খাতুনের। বিয়ের পর থেকে রতœা খাতুনের ওপর স্বপনের বড় ভাই রঞ্জু (ভাসুর) মাঝে মধ্যেই কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিলেন। কিন্তু তার কুপ্রস্তাবে রাজী না হওয়ায় তাকে জোর পূর্বক ধর্ষণ করেন।

রতœা খাতুন লোক লজ্জার ভয়ে কাউকে না জানিয়ে অভিমানে সম্প্রতি বিষপান করলে প্রথমে তাকে মুলাডুলি একটি ক্লিনিকে ভর্তি করেন স্বপনের পরিবার। তার অবস্থা অবনতি ঘটলে সেখান থেকে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে রতœা খাতুনকে স্থানান্তর করা হয়। ওইদিন রাতে কোন এক সময়ে রতœা খাতুনের মৃত্যু ঘটে। এঘটনায় ভাসুর রঞ্জুকে থানা পুলিশ গ্রেপ্তার করে জেলা হাজতে প্রেরন করেছে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.