ভৈরবে যাত্রীবাহী বাসে আগুন

১১

কিশোরগঞ্জের ভৈরব বাসস্ট্যান্ড দুর্জয় মোড়ে যাত্রীবাহী একটি বাসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। রোববার (৩ জানুয়ারি) রাত সাড়ে ৯টার দিকে আগুন লাগার ঘটনাটি ঘটে। বাসটি কীভাবে আগুন লেগেছে তা কেউ বলতে পারছেন না। আগুনে কোনো যাত্রী হতাহত হয়নি। তবে বাসটির চালক ও হেলপার পালিয়ে গেছে।
প্রতক্ষ্যদর্শী ও পুলিশ সূত্র জানায়, ঢাকা-কিশোরগঞ্জগামী অনন্যা পরিবহনের যাত্রীবাহী বাসটি (কিশোরগন্জ-ব-১১-০০৬০) রাত সাড়ে ৯টার দিকে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের ভৈরব বাসস্ট্যান্ড দুর্জয় মোড়ে পৌঁছলে পথচারীরা হঠাৎ বাসের পেছন দিকে আগুন দেখতে পায়। এ সময় চালক আগুনের টের পেয়ে বাসটি থামালে বাসের কয়েকজন যাত্রী চিৎকার করে নামতে দেখা যায়। তারপর যাত্রী, চালক ও হেলপার দ্রুত বাস থেকে নেমে যায়। এ কারণে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। খবর পেয়ে ভৈরব থানা ও ভৈরব হাইওয়ে পুলিশ বাসস্ট্যান্ডে আসে। পরে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা ঘটনাস্থলে পৌঁছে আধা ঘণ্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন নেভাতে সক্ষম হয়।

ভৈরব ফায়ার স্টেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাকিব হোসেন জানান, বাসের পেছন দিকে বেশি পুড়েছে। এতে মনে হয়, পেছন দিক থেকে আগুনটি লেগেছে। কীভাবে আগুনের ঘটনা ঘটল, তা চালক-হেলপারই বলতে পারবে। ভৈরব থানার ওসি মো. শাহিন জানান, বাসের চালক-হেলপার ও যাত্রীরা পালিয়ে যাওয়ায় আগুনের ঘটনাটি কীভাবে ঘটল তা প্রতক্ষ্যদর্শীদের কেউ বলতে পারছে না। তিনি বলেন, কেউ বাসের ভেতর ধূমপান করায় সিটে আগুন ধরে ঘটনাটি ঘটতে পারে। ঘটনাটি নাশকতা কিনা- এমন প্রশ্নের জবাবে ওসি বলেন, ঘটনাটি তদন্ত করা হবে। এ ঘটনায় থানায় পুলিশ বাদী হয়ে জিডি করবে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.