শাজাহানপুরে স্বামীকে ডিভোর্স দিয়ে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে রাস্তায় ছটফট করে স্ত্রী

২৩
বিজয় বাংলা বিডি  : 
বগুড়ায় স্বামীকে ডিভোর্স দিয়ে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন শিরিন বেগম (২৫) নামে এক গৃহবধূ। শনিবার রাতে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তিনি মারা যান। শিরিন বগুড়া শহরের চকলোকমান এলাকার মৃত নজির উদ্দিনের মেয়ে। রোববার (৩ ডিসেম্বর) সন্ধায় বিডি২৪লা্ইভকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সদর থানার ওসি হুমায়ুন কবীর।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শিরিন দুই বছর আগে শিশু সন্তানকে রেখে প্রথম স্বামীকে ছেড়ে শাজাহানপুর উপজেলার বেজোড়া দক্ষিণপাড়ার জিন্নাহকে পালিয়ে বিয়ে করেন। পরে স্বামীকে শনিবার তালাক দিয়ে গ্যাস ট্যাবলেট খেয়ে সাতমাথায় এসে ছটফট করতে থাকেন। তার এমন অবস্থা দেখে সাতমাথায় থাকা পুলিশ ও সাংবাদিকেরা মিলে তাকে চিকিৎসার জন্য শজিমেকে পাঠানোর ব্যবস্থা করেন।
শজিমেকে যাওয়ার পথে শিরিন তার বোনকে মুঠোফোনে বলেন ‘নিজেই স্বামীকে তালাক দিয়েছি। আর কোনো দিন তোদের সাথে দেখা হবে না। চিরতরে চলে যাচ্ছি। পারলে এসে দেখে যাস।আর আমার মৃত্যুর জন্য কেও দায়ী থাকবে না।’ বগুড়া সদর থানার ওসি হুমায়ুন কবীর জানান, গ্যাস ট্যাবলেট খাওয়ার ফলে শিরিনের মৃত্যু হয়েছে।  ময়নাতদন্ত শেষে মরদেহ স্বজনদের হাতে হস্তান্তর করা হয়েছে। রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর কারণ জানা যাবে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.