বগুড়ায় খড়ের গাদায় অগ্নিসংযোগের অভিযোগে গৃহবধূ গ্রেপ্তার

১৩

ধুনট (বগুড়া) প্রতিনিধি : 
বগুড়ার ধুনট উপজেলায় চিথুলিয়া গ্রামে জমিজমা বিরোধের জের ধরে খড়ের গাদায় অগ্নিসংযোগের অভিযোগে রিপা খাতুন (৩৫) নামে এক গৃহবধূকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। রিপা খাতুন উপজেলার চিথুলিয়া গ্রামের আবু তাহেরের স্ত্রী। শুক্রবার দুপুর ১২টায় ওই গৃহবধুকে থানা থেকে আদালতের মাধ্যমে বগুড়া জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এর আগে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় স্থানীয় জনতা ওই গৃহবধূকে ঘটনাস্থল থেকে আটক করে পুলিশের নিকট সোপর্দ করে।

পুলিশ ও স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, উপজেলার চিথুলিয়া গ্রামের বাদশা মিয়ার সাথে প্রতিবেশী আবু তাহেরের দীর্ঘদিন ধরে জমিজমা নিয়ে বিরোধ রয়েছে। গত ২০২০ সালের ১৭ জুন দুপুরের দিকে আবু তাহেরের স্ত্রী রিপা খাতুনের শরীরের এসিড নিক্ষেপের অভিযোগে বাদশা মিয়া ও তাঁর ছেলে মাসুদ রানাসহ ৪জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে। বর্তমানে মামলার সব আসামী আদালত থেকে জামিনের মুক্তি পেয়েছে।

এতে ক্ষুব্ধ হয়ে ওঠে এসিড শিকার গৃহবধু রিপা খাতুন। এক পর্যায়ে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৭টায় রিপা খাতুন বাদশা মিয়ার বাড়ির আঙ্গিনায় খড়ের গাদায় অগ্নি সংযোগ করে পালানোর চেষ্টা করে। এসময় স্থানীয় লোকজন ঘটনাস্থল থেকে রিপা খাতুনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। এ ঘটনায় বৃহস্পতিবার রাতে বাদশা মিয়ার ছেলে আইয়ুব আলী বাদি হয়ে রিপা খাতুন ও তার স্বামী আবু তাহেরসহ ৪জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে।
থানা হাজতে আটক রিপা খাতুন বলেন, এসিড নিক্ষেপকারী আসামীদের বাড়িতে অগ্নি সংযোগ ঘটনার সাথে আমি জড়িত নই। এলাকার মানুষ সন্দেহ করে আমাকে আটক করে পুলিশে দিয়েছে। কারা এই ঘটিয়েছে তাও আমি জানি না।
ধুনট উপজেলা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের টিম লিডার শামীম রেজা বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পৌছে আগুন নিয়ন্ত্রন করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে অগ্নিকান্ডের কারণ নির্ণয় করে প্রতিবেদন দাখিল করা হবে।
ধুনট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, অগ্নিকান্ডের ঘটনায় জনতার হাতে আটক রিপা খাতুনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। অন্য আসামীদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

উত্তর দিন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রচার করা হবে না.